Advertisement
অন্যান্য টপিকইসলামিক খবরইসলামিক ঘটনা

সবুরে মেওয়া ফলে

পশ্চিমা অঞ্ঝলের এক ভিক্ষুক হলব দেশের কাপরের বনিকদের বলছিল, হে নেয়ামতের অধিকারীরা!তোমরা যদি ইনসাফ কর তাহলে আমি সবুর করতে পারি এবং অন্যের নিকট হাত পাতার প্রথা দুনিয়া হতে উঠে যাবে। হে র্ধৈয!আমাকে ধনী বা মালদার কর।তুমি ছাড়া এ পার্থিব জগতে আর কোন শান্তিদাতা নাই।

Advertisement

লোকমান হেকিম ছবরের চাবি শক্তভাবে ধরেছিলেন।যার র্ধৈয নেই তার জ্ঞান নেই। জানা যায় যে,এক সময় মিশর দেশে দুজন শাহ্জাদা ছিল। একজন বিদ্যা শিক্ষা করত অন্যজন ব্যাবসা বাণিজ্য করে টাকা পয়সা জমা করত। অবশেষে একজন বিখ্যাত বিদ্বান হয়ে পড়ল।

দ্বিতীয় ব্যাক্তি মিশরের বাদশাহ হয়ে পড়ল এবং ধন দৌলতের জোরে ঐ বিদ্বান ব্যাক্তিকে অহংকারের সাথে হাকির বলে ঘৃণা চোখে দেখত এবং বলত বাদশাহী পযন্ত পৌছেছি। আর সে আজ পযন্ত দরিদ্রতার মধ্যে সেরুপ ভাবেই রয়ে গেল। বিদ্বান ব্যাক্তি বলল,হে ভাই!আমি মহান আল্লাহ পাকের নেয়ামত শোকর আদায় করেছি ,তিনি আমার ওপর এত বেশী নেয়ামত দান করেছেন,আমি মহানবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের ওয়ারিশ হয়েছি,অথাৎ বিদ্যা শিক্ষা হয়েছে। আর তুমি ফেরাউন ও হামানের ওয়ারিশ হয়েছ-অথাৎ মিশরের বাদশাহী পেয়েছ।

শিক্ষাঃ যার ধৈর্য নেই তার জ্ঞান নেই।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button